মাঘের শীতে কাঁপছে চায়ের রাজ্য

image

মাঘের শীত জেঁকে বসেছে। আবারও দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা চায়ের রাজ্য শ্রীমঙ্গলে। মাঘ মাসে শীতের এই দাপটে অনেকটাই ব্যাহত হচ্ছে স্বাভাবিক জীবনযাত্রা। কনকনে ঠান্ডা বাতাসের সঙ্গে জেঁকে বসেছে তীব্র শীত।

রোববার রাত পর্যন্ত সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে শ্রীমঙ্গলে ৯ দশমিক ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস। সোমবার (২৫ জানুয়ারী) ভোর থেকে জেলার সর্বত্রই রয়েছে কুয়াশা আবৃত।

ঢাকা-সিলেট মহাসড়কে দূরপাল্লার গাড়িগুলোকে হেডলাইট জ্বালিয়ে চলাচল করতে দেখা গেছে। বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে কুয়াশা কিছুটা কমলে সূর্যের দেখা মেলে। তবে রোদের তাপ অনেকটাই কম।

জেলার হাকালুকি ও কাউয়াদীঘি হাওরে বোরো চাষের মৌসুম শুরু হয়েছে। শীতের তীব্রতায় চাষিরা চাষের কাজে যেতে পারছেন না।

রোববার সন্ধ্যায় কাউয়াদীঘি হাওর পারের জগদীশ দাশসহ ৫-৬ জন চাষি বলেন, সারাদিন কুয়াশায় ঢাকা থাকে। সূর্যের আলো কম থাকায় চাষের কাজে নামা যাচ্ছে না।

সোমবার সকালে কথা হলে দিনমজুর মহিবুল বলেন, শীতের কারণে আমরা একদিন কাজ করলে আরেকদিন করতে পারি না। শীতের কাঁপুনিতে ঘরে বসে থাকি।

শ্রীমঙ্গল আবহাওয়া অধিদফতরের দায়িত্বরত কর্মকর্তা জায়েদুল ইসলাম মাসুম জানান, এই কয়েকদিন ধরে শ্রীমঙ্গলসহ মৌলভীবাজার জেলাজুড়ে ঠান্ডার প্রকোপ এমনই থাকবে। খুব বেশি কমবে না।

রোববার দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল শ্রীমঙ্গলে ৯ দশমিক ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস। আজ সোমবার শ্রীমঙ্গলে তাপমাত্রা রয়েছে ১২ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস। জেলার সব এলাকা কুয়াশায় ঢাকা রয়েছে।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.