নিজ দেশে অবস্থানরত প্রবাসীদের ভিসা ‘বাতিল’ করলো আরব আমিরাত

করোনাভাইরাসের কারণে আরব আমিরাতের যে সকল প্রবাসীরা বর্তমানে নিজ নিজ দেশে অবস্থান করছেন, তাদের ভিসা বাতিল করা হয়েছে। তবে এ খড়্গ পড়ছে শুধুমাত্র যারা ছয় মাস বা তার বেশি সময় আটকা পড়ে আছেন বা ছুটি কাটাচ্ছেন।

গতকাল বৃহস্পতিবার এক বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে এ তথ্য জানায় আমিরাতের মন্ত্রী পরিষদ। এতে বলা হয়েছে, ৬ মাসের বেশি আমিরাতের বাইরে থাকা প্রবাসীদের দেশে অভ্যন্তরে প্রবেশের যে সুযোগ ডিসেম্বর পর্যন্ত ছিল, তা বাতিল করা হয়েছে।

অবশ্য, সীমান্ত বন্ধ থাকায় আশেপাশের দেশে আটকে থাকা নিজ দেশের বাসিন্দাদের জন্য এ সুযোগ রয়েছে। বিমান চালু হওয়া মাত্রই তাদের ফিরতে হবে বলেও জানায় আরব আমিরাত।

বিজ্ঞপ্তিতে বাতিল হয়ে পড়া প্রবাসীদের নতুন করে আবেদনের কথাও বলা হয়েছে। এতে বলা হয়, যাদের গত ১ মার্চের পর ছয়মাসের সময়সীমা শেষ হয়েছিল; তাদেরকে ভিসার জন্য পুনরায় আবেদন করতে হবে।

গত বুধবার দেশটির ইমিগ্রেশন কর্তৃপক্ষ জানায়, ছয় মাসেরও বেশি সময় ধরে আমিরাতে বাইরে থাকা বিপুল সংখ্যক অভিবাসীর ভিসার মেয়াদ সমাপ্ত হতে চলেছে। যদিও সরকার এ বছরের শুরুর দিকে ঘোষণা করেছিল, গত ১ মার্চের পরে মেয়াদ শেষ হওয়া ভিসা ডিসেম্বরের শেষ দিকে সয়ংক্রিয়ভাবে নবায়ন করা হবে; তা আর হচ্ছে না। করোনভাইরাসজনিত কারণে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। তবে যারা আটকে পড়েছেন, তাদের জন্য সুযোগ সৃষ্টি হবে। নতুন করে তাদের আবেদনের সুযোগ দেবে কর্তৃপক্ষ।

উল্লেখ্য, গত ১২ জুলাই থেকে ভিসা সংক্রান্ত সকল প্রশাসনিক কার্যক্রম চালু করেছে আমিরাত সরকার। তাই যারা দেশে আছেন, এখনো ছয়মাস হয়নি তাদেরকে যতদ্রুত সম্ভব আমিরাতে প্রবেশের অনুরোধ করেছেন বাংলাদেশ প্রেসক্লাব ইউএইর নেতৃবৃন্দরা। পাশাপাশি দেশে আটকে থাকা আমিরাত প্রবাসীদের ব্যাপারে সরকারকে আন্তরিক হওয়ারও অনুরোধ করেছেন তারা।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.