আড়াই কোটি লোক দরিদ্র হতে পারে

তরুণ অর্থনীতিবিদদের বাজেট ভাবনা

পূর্ব এশিয়া ও প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চল নিয়ে বিশ্বব্যাংকের শঙ্কা

করোনাভাইরাসের আঘাতে বৈশ্বিক অর্থনৈতিক মন্দার ফলে পূর্ব এশিয়া ও প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলের দেশগুলোর দুই কোটি ৪০ লাখ মানুষ দারিদ্র্যের শিকার হতে পারে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করেছে বিশ্বব্যাংক। গতকাল মঙ্গলবার ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বিশ্বব্যাংক তার প্রতিবেদনে বলেছে, মহামারি করোনাভাইরাসের কারণে অর্থনীতির ওপর যে প্রভাব পড়েছে, তাতে করে সব দেশই তাৎপর্যপূর্ণভাবে আক্রান্ত হবে। এতে করে যেসব পরিবারের জীবিকা শিল্প-কারখানার ওপর নির্ভরশীল, তারা রয়েছে চরম ঝুঁকিতে। এটা তাদের জন্য অশনিসংকেত।

বিশ্বব্যাংক নির্দিষ্ট করে দিয়ে বলেছে, থাইল্যান্ডের পর্যটন খাত এবং ভিয়েতনাম, কম্বোডিয়াসহ প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলের উৎপাদনমুখী প্রতিষ্ঠানগুলোতে মহামারি করোনাভাইরাসের প্রভাব পড়বে। বিশ্বের শীর্ষ এই আর্থিক প্রতিষ্ঠানের সংজ্ঞানুযায়ী, যাদের দৈনিক আয় সাড়ে পাঁচ মার্কিন ডলারের নিচে তারাই দরিদ্র। করোনার করুণ দৃশ্যপট তুলে ধরে বিশ্বব্যাংকের আশঙ্কা, বিশ্বের প্রায় ৩৫ মিলিয়ন (সাড়ে তিন কোটি) মানুষ দারিদ্র্যের সাগরে পতিত হবে। করোনাভাইরাসের উৎপত্তিস্থল চীনে এ সংখ্যা গিয়ে দাঁড়াবে আড়াই কোটিতে।

বিশ্বব্যাংকের অনুমান, করোনাভাইরাসের কারণে পূর্ব এশিয়া ও প্রশান্ত মহাসাগরীয় উন্নয়নশীল দেশগুলোর প্রবৃদ্ধি ২.১ শতাংশ কমে যাবে।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.